মা সুন্দর একটি কবিতা

ইঞ্জিনিয়ার মোঃ ইসমাইল

মাগো !
তোমার খোকা তো অবুঝ নয়,
তোমারি বেদনার ধার ধারিনা ! মিছে কেন করো ভয় ।

স্রষ্টার কৃপায় আনিলে তুমি আলোক সজ্জায়,
সেই দুগ্ধকাল হতে যৌবনে আমি এতো তোমারি দয়ায় ।

শত গঞ্জনা আর পাঁচকাহনের পরেও আগলে রাখিলে আমায় ,
মাগো !
আমৃত্যু থাকিতে চাই তোমারি ডোরে স্বর্গীয় ছায়ায় ।

থাকিতে তুমি ভাবনে সবার !
ভাবিতে না কভু নিজের কথাই,
মাগো !
সে তো দিনের প্রান্ত হতে নিশিরাতের মাথায় ।

দুঃখে- দুঃখী হলেও তুমি থাকিতে হাস্যোজ্জ্বল ,
দেখিতো না কেহ তোমারি হতাশা তুৃমি সর্বদা উৎফুল্ল।

আসবো ফিরে বারে বারে যেথায় আমি যাই ,
তোর চেয়ে মা এই ধরাতে আপন যে আর নাই ।

ইচ্ছে করে তোর স্নেহ- মমতা আর সুদী দুগ্ধের ঋণ ,
শত-সহস্র বার দেখেছি ভেবে !
তব পাইনি খুজে নিখুঁত কোন মান ।

চাঁদনিরাত – দিনের আলো-সাত আসমান আর ভুবন জোড়া করিলেও তুল্য,
মাগো !
তবুও হবেনা সে তো তোমারি দুগ্ধ সমতুল্য ।

এপার ওপার দুই ভুবন জোড়ায় রেখো তোমার মায়ায়,
মাগো !
পর করোনা অজস্র ভুলেও এই আকুতি সর্বদায় ।।

Leave a Reply