মাদারগঞ্জ উপজেলা পরিষদের নবনির্বাচিত জনপ্রিয় চেয়ারম্যান রায়হান  রহমতুল্লাহ রিমু’র জামিন

মমিনুল ইসলাম (জামালপুর জেলা প্রতিনিধি ) 

জামালপুরের মাদারগঞ্জ উপজেলার সার ব্যবসায়ী নওশের আলী হত্যা মামলায় মাদারগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও মাদারগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক রায়হান রহমতুল্যাহ রিমুর জামিন মঞ্জুর করেছেন আদালত।

জানা যায়, মাদারগঞ্জ উপজেলা পরিষদের নবনির্বাচিত জনতার  চেয়ারম্যান রায়হান রহমতুল্যাহ রিমুর জামিন মঞ্জুর হওয়ার বিষয়টি জানাজানি হলে জামালপুর জেলা কারাগারের প্রধান ফটকে তার সমর্থক সহ আওয়ামী লীগ ও সহযোগি অংঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা ভিড় জমান। পরে আদালতের আদেশে বিকেল ৩টার দিকে জেলা কারাগার থেকে মুক্ত হয়ে তিনি বের হন। এ সময় মাদারগঞ্জ থেকে আসা তার সমর্থক আওয়ামী লীগ সহ সহযোগি ও অংঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা তাকে ফুলের মালা পরিয়ে মাদারগঞ্জের উদ্দেশে রওনা হন।

মঙ্গলবার (৯ জুলাই) বেলা ১২টার দিকে জেলা ও দায়রা জজ মো. এহসানুল হক এ আদেশ দেন। 

এর আগে জামিন নামঞ্জুর হওয়ায় ১ জুলাই থেকে জেলা কারাগারে ছিলেন তিনি।

উল্লেখ্য, মাদারগঞ্জ উপজেলার সার ব্যবসায়ী নওশের আলী হত্যা মামলার আসামি উপজেলা পরিষদের নবনির্বাচিত জনতার চেয়ারম্যান রায়হান রহমতুল্যাহ রিমুকে গত ১ জুলাই বেলা সোয়া ৩টার দিকে জামালপুরের চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মাসুদ পারভেজ তার জামিন নামঞ্জুর করে আদেশ দেন। ওই দিন থেকে তিনি জেলা কারাগারে আটক ছিলেন। এরই মধ্যে তার নিঃশর্ত মুক্তি চেয়ে মাদারগঞ্জে হরতাল-অবরোধসহ বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করে রিমুর সমর্থক আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী ও স্থানীয় ভোটার জনতা।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী মো. ইউসুফ আলী জানান, মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে জামালপুরের জেলা ও দায়রা জজ আদালতে রায়হান রহমতুল্যাহ রিমুর জামিনের আবেদনের শুনানি হয়। পরে জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. এহসানুল হক উভয়পক্ষের আইনজীবীর বক্তব্য শুনে সন্তুষ্ট হয়ে রায়হান রহমতুল্যাহ রিমুকে আগামী এক মাসের জন্য অন্তবর্তীকালীন জামিনের আদেশ দেন।

Leave a Reply