পাঁচবিবিতে ৪০ বছর ধরে চলাচলের রাস্তা বন্ধ করায় অটো চালকের মানবতের জীবন যাপন

জুয়েল শেখ জয়পুরহাট জেলা প্রতিনিধি

জয়পুরহাটের পাঁচবিবিতেবরন গ্রামে পারিবারিক প্রতিহিংসায় ৪০ বছরের চলাচলের রাস্তা কেটে যাতায়াত ব্যবস্থা বন্ধ করায় এক ভুক্তভোগি অটোচালক পাঁচবিবি থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।
রাস্তাটি বন্ধ করার কারণে গত ৭ দিন থেকে সে তার ইজিপাওয়ার বাড়ি থেকে বের করতে না পারায় থ্যালাসামিয়া রোগে আক্রান্ত অসুস্থ শিশু কণ্যাকে নিয়ে মানবতের জীবন যাপন করছেন।

ভুক্তভোগী আব্দুল ছবুরের ছেলে ইজিপাওয়ার চালক আহসান হাবীব রুবেলেরন থানায় করা অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, বরণ গ্রামের সাধারণ মানুষ ও এলাকার ছাত্র ছাত্রী ও মসজিদে নামাজ পড়ার জন্য চলাচলের একমাত্র রাস্তা এটি। এছাড়া কৃষকেরা মাঠ থেকে ফসল নিয়ে এই রাস্তা দিয়ে যাতায়াত করে। পারিবারিক প্রতিহিংসার জের ধরে গত কয়েক দিন আগে প্রতিবেশী মৃত সোহরাব হোসেনের ছেলে কুরবান আলী জায়গাটি নিজের দাবি করে রাস্তাটিতে কয়েক স্হানে গর্ত ও মাঝখানে কেটে দেন।

এ সময় রুবেল হোসেনের পরিবার বাধা দিতে গেলে তাদের অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করে এবং হুমকি ধামকি প্রদান করে। রাস্তাটিতে গর্ত ও কেটে ফেলার কারনে ভুক্তভোগি এক সপ্তাহ ধরে তার ইজি পাওয়ার বের করতে পারছে না। একারণে বাড়ীতে থাকা ৭ বছর বয়সী থ্যালাসামিয়া রোগী শিশু ও পরিবার পরিজন নিয়ে মানবতের জীবন যাপন করছেন।
এ বিষয়ে কোরবান আলী বলেন, রাস্তাটি আমার ব্যক্তিগত সম্পত্তি , আমার প্রয়োজনে রাস্তা তৈরি করা হয়েছিল।

এখন রাস্তাটি আমার প্রয়োজন নাই। তাছাড়া ওই রাস্তা দিয়ে আমি কোন অটো গাড়ি চলাচল করতে দিব না। মানুষ পায়ে হেঁটে যাতায়াত করুক, আমার কোন অসুবিধা নাই।

পাঁচবিবি থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ ফয়সাল বিন আহসান, জানান কোন অবস্থাতেই মানুষের যাতায়াত রাস্তা বন্ধ করা যাবে না, বিষয়টি খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Leave a Reply