এমপি আনারের মরদেহের ক্লু পেতে স্যুয়ারেজ লাইন ভাঙার অনুরোধ ডিবির

মোঃ সেলিম

ঝিনাইদহ-৪ আসনের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজীম আনার হত্যার রহস্য উদঘাটন এবং তার খণ্ডিত দেহ উদ্ধারে কলকাতায় গিয়ে চেষ্টা চালাচ্ছে বাংলাদেশ গোয়েন্দা পুলিশের একটি প্রতিনিধি দল। এই প্রতিনিধি দলের নেতৃত্বে রয়েছেন ডিবি প্রধান হারুন অর রশীদ।

আজ মঙ্গলবার (২৮ মে) তৃতীয় দিনের মতো এমপি আনারের খণ্ডিত দেহ উদ্ধারে তল্লাশি চালাতে গিয়ে গণমাধ্যমের মুখোমুখি হন। এ সময় তিনি বলেন, কলকাতার তদন্তকারী কর্মকর্তারা খুবই আন্তরিকভাবে কাজ করছে।

হারুন বলেন, এমপি আনারের খণ্ডিত অংশ খুজে পেতে আমরা সঞ্জীবা গার্ডেনের পাশে হাতিসালা লেকে অপারেশন পরিচালনার অনুরোধ জানিয়েছি। এছাড়া এমপি যে ফ্ল্যাটে ছিলেন, সেখানে কমোডের সুয়ারেজ লাইন ভেঙে ফেরার অনুরোধ জানিয়েছে। আশা করছি কাজগুলো আজকের মধ্যেই হবে। একই সঙ্গে শালা ব্রিজের পাশে খালটিতেও সেখানে তল্লাশি অভিযান চলবে।

এদিকে লাশ না পেলে এই মামলার নিষ্পত্তি হবে কিনা সে ব্যাপারে ডিবি প্রধান জানান, সিআইডি পুলিশ প্রত্যেকটি বিষয়ে পুঙ্খানু পুঙ্খ বিষয়ে কাজ করছে। আমরাও আমাদের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।

তিনি আরও বলেন, এই ঘটনায় জড়িত মূল ঘাতক এবং গ্রেপ্তার জিহাদকে জেরা করে যে তথ্য পেয়েছি তার আলোকে অভিযান চলছে। আমি মনে করি ভারত এবং বাংলাদেশের অভিজ্ঞ কর্মকর্তারা পারিপার্শ্বিকতা ডিজিটাল এভিডেন্স এবং আসামিদের স্বীকারোক্তি মূলক জবানবন্দীর মাধ্যমে আদালত যে রিপোর্ট প্রদান করবেন সেই রিপোর্টের ভিত্তিতে এই হত্যাকাণ্ডের বিচার করা কষ্টকর হবে বলে আমি মনে করি না।

এদিকে ডিবি প্রধান জানান, এমপি আনারকে যে ফ্ল্যাটে হত্যা করা হয়েছে সেখান থেকে রক্তের নমুনা সংগ্রহ করে ফরেনসিক ল্যাবরেটরিতে পাঠানো হয়েছে। লাশের খণ্ড উদ্ধারে আমরা এখনও আশা ছাড়ছি না। তদন্তের স্বার্থে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলে কলকাতায় আটক জিহাদ হাওলাদারকে বাংলাদেশের নিয়ে যাওয়া হতে পারে।

Leave a Reply